MOBILE VERSION

popular-recent

Recent Posts
     
 
TranslationTranslation PoetryPoetry ProseProse CinemaCinema
Serialধারাবাহিক
Weekly
Weekly
Visual-art
Art
ReviewReview
Web IssueWeb Issue InterviewInterview Little-MagazineLil Mag DiaryDiary
 
     

recent post

txt-bg




top

top












txt

Pain

আড্ডা, সাবেকী ভাষায় Interview
আমার জীবন থেকে উঠে আসা সুর
এখনো অ্যানাউন্সমেন্ট হয় নাই, আসবে কি না জানা নাই
ব্যথার পূজা হয়নি সমাপন

Orlando Killer Was Right - M S Ganguly

'Orlando Killing'
Dolchhut weekly

ওমর মির সিদ্দিকি মাতিন। ২০১৬ ,  ১২ ই জুন। অরল্যাণ্ডো-  দ্য পালস। গে নাইট ক্লাব আর মৃত্যু সংখ্যা ৪৯ - জানি আপনি জানেন। আমার প্রশ্ন অন্য। প্রশ্ন নয়, সরাসরিই বলছি - মাতিন কোন ভুল করে নি। সমকামীদের পাথর দিয়ে পিষে মারা উচিত। না কথাটা আমার নয়। মাতিনের স্বপক্ষে যে সাক্ষ্য,  তা হুবহু কোট করলাম -  

وَلُوطًا إِذْ قَالَ لِقَوْمِهِ أَتَأْتُونَ الْفَاحِشَةَ مَا سَبَقَكُم بِهَا مِنْ أَحَدٍ مِّن الْعَالَمِينَ
إِنَّكُمْ لَتَأْتُونَ الرِّجَالَ شَهْوَةً مِّن دُونِ النِّسَاء بَلْ أَنتُمْ قَوْمٌ مُّسْرِفُونَ
وَمَا كَانَ جَوَابَ قَوْمِهِ إِلاَّ أَن قَالُواْ أَخْرِجُوهُم مِّن قَرْيَتِكُمْ إِنَّهُمْ أُنَاسٌ يَتَطَهَّرُونَ
فَأَنجَيْنَاهُ وَأَهْلَهُ إِلاَّ امْرَأَتَهُ كَانَتْ مِنَ الْغَابِرِينَ
وَأَمْطَرْنَا عَلَيْهِم مَّطَرًا فَانظُرْ كَيْفَ كَانَ عَاقِبَةُ الْمُجْرِمِينَ

যার বাংলা ব্যাখ্যা অনেকটা এই রকম -
... আর 'লুত' কে আমার পয়গম্বর বানিয়ে পাঠিয়েছি। অতঃপর স্মরণ কর যখন সে নিজ জাতির লোকদের বলল- " তোমরা কি এতদূর নির্লজ্জ হয়ে গিয়েছ যে, তোমরা এমন সব নির্লজ্জতার কাজ করছ, যা তোমাদের পূর্বে দুনিয়ায় কেউ করে নি? স্ত্রী লোকদের বাদ দিয়ে পুরুষদের দিয়ে নিজেদের যৌন ইচ্ছা পূরণ করে নিচ্ছ। সীমা ছাড়িয়ে গিয়েছ তোমরা। " জবাবে তার জাতির লোকেরা বলল, “ বের করে দাও এদের জনপদ থেকে। এরা নিজেদের বড় পবিত্র বলে জাহির করছে।"    অতঃপর আমি তাকে ও তার পরিবার পরিজনদের বাঁচিয়ে বের করে আনলাম। শুধু মাত্র তার স্ত্রী সেই জাতির লোকদের সঙ্গে রয়ে গেল। আর আমি  তাদের উপর পাথর-বৃষ্টি বর্ষিত করলাম। তারপর দেখ সেই অপরাধী লোকদের কি পরিণাম হল!

- পবিত্র কুরআন
সূরার নামঃ সূরা আল আ' রাফ। (৮০-৮৪)
তথ্যসূত্র - quran[dot]gov[dot]bd/home/selectSura.html ( Ministry of Religious Affairs, Ministry of Religious Affairs, Government of the People's Republic of Bangladesh )

দ্বিতীয় সাক্ষী - হাদিস

# "ইবনে আব্বাস বলেন, রাসুল (স) বলেছেন, তোমরা যদি কাউকে পাও যে লুতের সম্প্রদায় যা করত তা করছে, তবে হত্যা কর যে করছে তাঁকে আর যাকে করা হচ্ছে তাকেও।" (আবু দাউদ ৩৮ :৪৪৪৭ )

# "আবু সাইদ আল খুদ্রি বলেন, রাসুল (স) বলেছেন, একজন পুরুষ আরেক পুরুষের যৌনাঙ্গ দেখবে না। এক নারী আরেক নারীর যৌনাঙ্গ দেখবে না। এক পুরুষ আরেক পুরুষের সাথে অন্তত অন্তর্বাস না পরে একই চাদরের নিচে ঘুমাবে না। এক নারী আরেক নারীর সাথে কখনও অন্তত অন্তর্বাস না পরে একই চাদরের নিচে ঘুমাবে না।" (আবু দাউদ, ৩১:৪০০৭)

# "আবু হুরাইরা (রা) থেকে বর্ণিত, রাসুল (স) বলেন, এক পুরুষ আরেক পুরুষের সাথে বা এক নারী আরেক নারীর সাথে ঘুমাতে পারবে না লজ্জাস্থান ঢাকা ব্যতীত। তবে ব্যতিক্রম করা যাবে, শিশু আর পিতার ক্ষেত্রে... রাসুল (স) ৩য় আরেকজনের কথা বলেছিলেন কিন্তু আমি ভুলে গিয়েছি।" (আবু দাউদ, ৩১:৪০০৮)

* সমকামীদের শাস্তি কী-

# "ইবনে আব্বাস বলেন, অবিবাহিত কাউকে যদি সমকামিতায় পাওয়া যায় তাহলে তাঁকে পাথর মেরে হত্যা করতে হবে।" (আবু দাউদ, ৩৮ :৪৪৪৮ )



এবার নিশ্চয়ই আপনার বিশ্বাস হয়েছে মাতিন কোন ভুল করে নি। পাথর দিয়ে পিষে মারাটা অনেক বেশি নৃশংস, গুলি করে মারার থেকে। এবং এই বিশ্বাসে অনেকেই চলেন, আমি আমার চারপাশের বহু মানুষকে দেখেছি, তারা হয় সমকামীদের ঘৃণা করে, না হলে বিদ্রূপ করে। অনেকে এটাও মনে করে, সমকামীতা একটা রোগ, কারো মতে ফ্যাশান। আমি আমার এক হিন্দু-বন্ধু কে বলতে শুনেছি, " সমকামীদের রাস্তায় ফেলে পেটানো উচিত।"  কথাটা ধর্মের নয়। আমি জানি আমার সেই বন্ধু কোন ধর্মগ্রন্থ পড়ে বলে নি, ঐ কথা। আমার কিছু কিছু পুরুষ বন্ধু ছোট থেকেই 'নারীসুলভ' আচরণ করে। তাদের কথা বলার ধরণ হাঁটার ধরণ অন্য পাঁচ জন পুরুষের থেকে একটু আলাদা। আর  সেই ছোট থেকেই, অন্যান্য  বন্ধুদের নানা ভাবে উত্যক্ত করা, তাদের মায়েদের ফিসফিসানি, এমন কি শিক্ষকদেরও মুচকি হাসতে দেখেছি তাদের দিকে তাকিয়ে। বিভিন্ন সিনেমা, লাফিং শো-তেও এই 'কমিউনিটি'র মানুষদের নিয়ে হাসি ঠাট্টা হয়ে থাকে। এই ঘৃণা, বিদ্রূপ - কোন ধর্মগ্রন্থ নয়, মানুষের বড় হয়ে ওঠাই তার  মধ্যে এনেছে।   সংখ্যা গরিষ্ঠের থেকে আলাদা হলেই , সে অদ্ভুত এবং এটা তার অসুখ।
বিশ্বে এরকম ১২ জন ইমাম আছেন যারা সমকামী। তাদের মধ্যে আট জন জনসমক্ষে স্বীকার করেছেন তারা ' গে '। আফ্রিকান- আমেরিকান দায়ইয়ে আব্দুল্লাহ তাদেরই একজন। আরতি টিকু সিং- (টাইমস অফ ইণ্ডিয়া ) তাকে প্রশ্ন করেছিলেন, কুরআন কি সমকামীতাকে স্বীকার  করে ?  উত্তরে তিনি বলেন, করে। কুরআনে এমন কোন কথা বলা নেই যা সমকামীতার বিরুদ্ধে। মূলত সৌদি  আরবের মতো দেশগুলো তাদের বিপুল অর্থের সাহায্যে এক ভ্রান্ত ইসলামের প্রচার করে বেড়াচ্ছে। ওয়াহাবিস্ট এবং সালাফিস্টদের,  কুরআনের ভুল ব্যাখ্যাই সাধারণ মুসলিমদের সংকীর্ণ মনোভাবাপন্ন করে তুলেছে। ১৮০০-র মাঝামাঝি কয়েকজন ইমাম প্যারিস গিয়েছিলেন, তারা সেখানে ইসলাম দেখেছিলেন, কিন্তু কোন মুসলমানের দেখা পান নি। তারাই আবার যখন মুসলিম দেশ গুলিতে গেলেন, মুসলামানের দেখা পেলেন, ইসলামের নয়। মাতিনের ঘটনায় তার মতামত, মাতিনের বাবা বলেছেন-  দুজন পুরুষকে চুমু খেতে দেখে মাতিন ক্ষেপে  উঠেছিল, কিন্তু এতে রাগের কিছু নেই। মুসলিম দেশগুলি তে কি খায় না? তিনি নিজেই খেয়েছেন, এর মধ্যে কোন যৌনতা নেই। মুসলিমরা নিজেদেরকে সংকীর্ণ চিন্তাধারা মধ্যে ফেলে রেখেছে।  যার জন্য কুরআনকে দোষ দেওয়া যায় না । দোষটা এর অপব্যাখ্যার।

দ্বিতীয় যে বিষয়টা উঠে আসছে, মাতিন নিজেই সমকামী ছিলেন। তিনি পালসে আগেও গ্যাছেন, সমকামী ডেটিং এপ্লিকেশানও ব্যবহার করতেন।
এখানে একজনের প্রশ্ন তুলে দিচ্ছি -

প্রশ্ন: আমি মুসলমান। আমার বয়স ষোল। আমি নিয়মিত নামাজ পড়ি ও রোজা রাখি। ব্যক্তিগত জীবনে আমি দ্বীনদার। তবে সমস্যা হল আমি সমকামী। শুরুতে আমি আমার পিতাকে নিয়ে ভাবতাম। আমার মনে হয় জেনিটিক কারণে আমি সমকামী হয়েছি। আমি খারাপ চিত্র দেখি। তবে আমি এ থেকে নিষ্কৃতি পেতে চাই। আমি জীবনে কখনো যৌনকর্মে লিপ্ত হই নি। আমি সত্যি সত্যিই আল্লাহকে ভয় করি। আমি তাঁকে সবসময়ই ডাকি যাতে তিনি আমাকে সাহায্য করেন।
আপনার কাছে আমার আকুল আবেদন আপনি আমাকে বাস্তব কিছু পরামর্শ দেবেন যাতে আমি এই দুর্যোগ থেকে রেহাই পেতে পারি।

উত্তর: দুয়া করি আল্লাহ তোমাকে এই মারাত্মক ব্যাধি থেকে অতি দ্রুত আরোগ্য দান করুন।
আর তোমার রোগের চিকিৎসা নিম্নবর্ণিতভাবে হতে পারে:
এক: বেশি-বেশি দুয়া করতে হবে এবং কায়মনোবাক্যে আকুতি করতে হবে আল্লাহ যেন তোমাকে ক্ষমা করে দেন।
দুই: নিজের হৃদয়ে ঈমানের বীজকে যত্ন করো।
তিন: বিয়ে করে ফেল। দারিদ্র্যকে ভয় পেয়ো না; আল্লাহ তোমাকে তার করুণায় অভাবমুক্ত করে দেবেন।
চার: যদি বিবাহ সম্ভব না হয় তাহলে আরেকটি সমাধান হল রোজা রাখা।
পাঁচ: কখনো একাকী নিভৃতে থেকো না। কেননা একাকীত্ব যৌনবিষয়ে চিন্তা করা কারণ হতে পারে।
ছয়: আর তোমার সময়কে উপকারী বিষয়ে ব্যয় করতে সচেষ্ট হও- যেমন- সৎকাজ, কুরআন তিলাওয়াত, যিকির, নামাজ ইত্যাদি।
সাত: ফাসেক ও অসৎপ্রবণ ব্যক্তিদের সঙ্গ ত্যাগ করো; যারা এসব বিষয়ে গুরুত্ব দিয়ে থাকে।
প্রিয় ভাই! তুমি আল্লাহর রহমত থেকে নিরাশ হয়ো না। হুঁশিয়ার থাকো, শয়তান যেন তোমার উপর আধিপত্য বিস্তার করতে না পারে।

এই প্রশ্ন এবং উত্তর কাল্পনিক নয় ( সূত্র - islamqa[dot]info/bn/20068)। এরকমটাই বেশীর ভাগ সমকামী মানুষের ক্ষেত্রে হয়ে থাকে। যারা ছোট থেকেই জেনে আসছে, সমকামীতা পাপ ,  ঘৃণ্য - সে যখন নিজে অনুভব করছে, সে নিজেই সমকামী, প্রথম রাগটা তার নিজের ওপর আসে। সেই রাগ বাড়তে বাড়তে গিয়ে পড়ে তার ' নিজের মতো ' মানুষদের ওপর। সে থেকেই এই গে কিলিং, বলে বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন।

অথচ প্রশ্নটার উত্তরটা হতেই পারত,  সমকামীতা কোন রোগ নয়, এটা খুব স্বাভাবিক একটা বিষয়।
যদি এই প্রশ্নটা মাতিন করে থাকত, আর তার উত্তর যদি এইগুলি হত, তাহলে,  মাতিন ভুল করেছিল, কারণ প্রশ্নটা করেছিল একজন ভুল মানুষের কাছে।

তৃতীয়ত, আই এস। সন্ত্রাসবাদ। মাতিন বারবার চেঁচিয়ে বলেছিল, আমেরিকা যেন তার দেশের ওপর বোমা ফেলা বন্ধ করে।  তার দেশ বলতে বোঝায়, আফগানিস্থান। একটা দেশে নিজের অধিকার কায়েম করার জন্য, প্রথমে পাকিস্থানের সাথে হাত মিলিয়ে আল কায়দা, লাদেন তৈরী করল, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। তারপর সেই লাদেনকে শেষ করতে সেই দেশেরই অসংখ্য মানুষকে মেরে ফেলল। রেপ করল মেয়েদের। গুড়িয়ে দিল বাড়ি ঘর। ২০০১-র অক্টোবর থেকে তালিবানরা ক্ষমতাচ্যুত হওয়া পর্যন্ত, এমনকি তার পরেও’ আফদানিস্তানে ৩০ হাজার বোমা ফেলেছে মার্কিন-ব্রিটিশ সেনারা। যার মধ্যে তেজস্ক্রিয় বোমাও ছিল। আর সেই বোমার প্রভাব, কতদিন দেশটা বয়ে বেড়াবে তার কোন ঠিক নেই। এটারও আর এক নাম সন্ত্রাসবাদ। আর এই সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে আই এস কুরআন থেকে যে শব্দটা ব্যবহার করল, সেটা 'জিহাদ'। “ জিহাদ সমস্ত প্রকার অত্যাচার,অনাচার ও সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে। আর জিহাদকে অনুমোদনই দেয়া হয়েছে আত্মরক্ষার জন্য।”
আক্রমণ নয়, আত্মরক্ষা। এবার আত্মরক্ষা কি ভাবে করব?
 মহাগ্রন্থ আল-কুরআনে জিহাদের আবশ্যকতা সম্পর্কে বলা হয়েছে-

كُتِبَ عَلَيْكُمُ الْقِتَالُ وَهُوَ كُرْهٌ لَكُمْ وَعَسَى أَنْ تَكْرَهُوا شَيْئًا وَهُوَ خَيْرٌ لَكُمْ وَعَسَى أَنْ تُحِبُّوا شَيْئًاوَهُوَ شَرٌّ لَكُمْ وَاللَّهُ يَعْلَمُ وَأَنْتُمْ لَا تَعْلَمُونَ (216)
অর্থাৎ, তোমাদেরকে যুদ্ধ করার হুকুম দেয়া হয়েছে এবং অথচ তা তোমাদের কাছে অপছন্দনীয়। হতে পারে তোমরা এমন কিছুকে অপছন্দ কর যা আসলে তোমাদের জন্য কল্যাণকর। আবার এমনও হতে পারে কোন জিনিসকে তোমরা পছন্দ করো অথচ, তা তোমাদের জন্য অকল্যাণকর। আল্লাহ সবকিছু জানেন,কিন্ত তোমরা জানো না। (সুরা বাকারা: ২১৬)

অন্য আয়াতে এসেছে:

أُذِنَ لِلَّذِينَ يُقَاتَلُونَ بِأَنَّهُمْ ظُلِمُوا وَإِنَّ اللَّهَ عَلَى نَصْرِهِمْ لَقَدِيرٌ (39) الَّذِينَ أُخْرِجُوا مِنْ دِيَارِهِمْبِغَيْرِ حَقٍّ إِلَّا أَنْ يَقُولُوا رَبُّنَا اللَّهُ وَلَوْلَا دَفْعُ اللَّهِ النَّاسَ بَعْضَهُمْ بِبَعْضٍ لَهُدِّمَتْ صَوَامِعُ وَبِيَعٌوَصَلَوَاتٌ وَمَسَاجِدُ يُذْكَرُ فِيهَا اسْمُ اللَّهِ كَثِيرًا وَلَيَنْصُرَنَّ اللَّهُ مَنْ يَنْصُرُهُ إِنَّ اللَّهَ لَقَوِيٌّ عَزِيزٌ (40)
 অর্থাৎ, যুদ্ধের অনুমতি দেয়া হলো তাদেরকে যাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করা হচ্ছে,কেননা তারা মজলুম এবং আল্লাহ তায়ালাঅবশ্যই তাদেরকে সাহায্য করার ক্ষমতা রাখেন। তাদেরকে নিজেদের ঘরবাড়ি থেকে অন্যায়ভাবে বের করে দেয়া হয়েছে শুধুমাত্র এ অপরাধে যে, তারা বলেছিল,“আল্লাহ আমাদের রব।” যদি আল্লাহ তায়ালা লোকদেরকে একের মাধ্যমে অন্যকে প্রতিহত করার ব্যবস্থা না রাখতেন,তাহলে যেখানে আল্লাহর নাম বেশী করে উচ্চারণ করা হয় সেসব আশ্রম,গীর্জা,ইবাদাতখানা ও মসজিদ ধ্বংস করে ফেলা হত। আল্লাহ তায়ালা নিশ্চয়ই তাদেরকে সাহায্য করবেন যারা তাঁকে সাহায্য করবে। আল্লাহ তায়ালা বড়ই শক্তিশালী ও পরাক্রান্ত। (সুরা হজ্জ: ৩৯-৪০)

মাতিনের চোখে মার্কিনি সেনারা তাই তো করেছে। তাই মাতিনও অক্ষরে অক্ষরে আত্মরক্ষার পথ নেয়।  আর আমি ?  বাড়িতে গো মাংস রাখার দোষে পাশের বাড়ির মুসলিমটিকে পিটিয়ে মেরে ফেলি।  আর  আপনি মুসলিম ,  সুযোগ খুঁজুন আমার পেটে ছুরি ঢোকানোর। যুদ্ধ সন্ত্রাসবাদ  দাঙ্গা – আলাদা আলাদা নাম দেওয়া হয়। যেমন বলা হয় জিহাদ আর সন্ত্রাস এক নয়। আমি একটা ডকুমেণট্রি দেখেছিলাম, যাতে একটি বাচ্চা বলছে সে হিন্দুকে মারবে। ক্যামেরার সামনে। পরিচালক জিজ্ঞেস করছেন, আমি তো হিন্দু তুমি আমাকেও মারবে, বাচ্চাটা লাজুক হাসিতে বলছে না, তুমি হিন্দু নও মুসলমান।

পুনশ্চ- এই লেখা কখনোই মাতিন ঠিক, দাবি করে না। একটা আলোচনার শুরু করতে চায় মাত্র।

সূত্রঃ
1. আফগানিস্তান এবং সমসাময়িক বিশ্ব ।| সম্পাদনাঃ দেবাশিস চক্রবর্তী, অধৃষ্য কুমার, স্বাতী বিশ্বাস ।| ন্যাশনাল বুক এজেন্সি প্রাইভেট লিমিটেড
2. ইসলামের দৃষ্টিতে জিহাদ | লিখেছেন মুহাম্মদ ইসমাইল জাবীহুল্লাহ | Wednesday, 21 March 2012 |
3. http://www[dot]islam[dot]net[dot]bd/content/view/211/27/
4. http://www[dot]rawa[dot]org/temp/runews/rawanews[dot]php?id=3061
5. http://www[dot]thedailybeast[dot]com/articles/2013/05/22/afghanistan-s-rape-crisis-villagers-fear-u-s-backed-militias[dot]html
6. http://www[dot]usc[dot]edu/org/cmje/religious-texts/hadith/abudawud/038-sat[dot]php
7. http://www[dot]usc[dot]edu/org/cmje/religious-texts/hadith/abudawud/031-sat[dot]php 



2 comments:

  1. ভালো লাগলো। তবে অনেক উত্তর পেলাম না।

    ReplyDelete
  2. বলুন , প্রশ্ন গুলো ... আলোচনা হোক।

    ReplyDelete